অসামাজিক মহাকবিতা – ডিসেম্বর ২০১৫

হারিয়ে যাই, সময়ের মোড়ে আমি হারিয়ে যাই
স্বঘোষিত কোনো বেদনার আঘাতে মুমূর্ষ
আমি হারিয়ে যাই…
– ১১ ডিসেম্বর, ২০১৫

বিরতিহীন স্বাধীন, স্বপ্ন আমার রঙ্গিন
এপারেতে তাসের বাড়ী
ওপারেতে বন্ধু বিহীন…
– ১২ ডিসেম্বর, ২০১৫

রাতের হাটে ঘুম বেঁচেছি
তারার পানে চোখ
নিভু নিভু স্বপ্নে জোনাকির ঝলক
– ১২ ডিসেম্বর, ২০১৫

ভ্রান্ত পথের মলিন ধুলো
আমার শরীর জুড়ে
হে শতাব্দী, আমি যাচ্ছি
হারানোর ব্যাথা কি তুমি সইবে?
স্বত্বা হারিয়েছি, স্বপ্নও বাকি নেই
নিরাশার এ কোন অস্তিত্ব!
হে শতাব্দী, আমি ক্লান্ত
– ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৫

তুমি চাইলেই হয়ে যেত
আধারের মিছিলে আলো যেত
চাঁদটাও তখন স্বত্বা পেতো
……………………………
তুমি জানো, আমি নীরব কেন!
– ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৫

ছিলাম যে পথে, আমি নই কেন আজ
হারানটাকে ব্যাথা ভেবে কাটিয়েছি বহু রাত
নির্বোদ্ধ আশায় বুনেছিলাম স্বপ্ন
ঘুনে ধরা সৌন্দর্যে ছিলাম যেন মুগ্ধ
ফিরে এসেছি আমি, আমার হয়ে!
যা কিছু বাকি ছিল আগামীতেও রবে
চাইনা শুধু সুখ, দুঃখ তুমিও রবে…
– ১৮ ডিসেম্বর, ২০১৫

ইস! যদি হয়ে যেতাম তারা
পথটা ঘুরে এসে জড়িযে বলতাম
দাড়া! কেন আমায় দিসনা সাড়া?
ছেড়া কাঁথার স্বপ্ন আমার
চড়িয়েছি পংখিরাজে,
শীতকালের শুস্কমন, ভেজেনা একবুলিতে
– ২০ ডিসেম্বর, ২০১৫

Photo Credit: Matthew Henry

Comments

comments